1. admin@sabujbanglanews.com : সবুজ বাংলা নিউজ : সবুজ বাংলা নিউজ
  2. uttam.birganj14@gmail.com : সবুজ বাংলা নিউজ : সবুজ বাংলা নিউজ
বীরগঞ্জে তীব্র গরমে চোখ জুড়াচ্ছে কৃষ্ণচূড়া - সবুজ বাংলা নিউজ
বুধবার, ২৯ মে ২০২৪, ১২:০৫ অপরাহ্ন

বীরগঞ্জে তীব্র গরমে চোখ জুড়াচ্ছে কৃষ্ণচূড়া

বার্ত ডেক্স
  • প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ৩ মে, ২০২৪

বিকাশ ঘোষ, বীরগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধি:

দিনাজপুরের বীরগঞ্জ উপজেলা সদর ও বিভিন্ন ইউনিয়নের প্রত্যান্ত গ্রামাঞ্চলে চোখ রাগাতে দেখা যাচ্ছে কৃষ্ণচূড়া। তীব্র গরমে নাজেহাল জনজীবন। কোথায় গেলে দুদণ্ড শান্তি মিলবে, সেই খোঁজ করে চলেছেন সবাই। ফ্রিজের ঠান্ডা পানিতে গলা ভিজিয়ে আর এসির হাওয়া গায়ে লাগিয়ে খানিকটা স্বস্তি পাওয়া যাচ্ছে বটে, তবে গ্রীষ্মের তপ্ত রোদে চোখ জুড়ানো আর মন ভরানো স্বস্তি মিলছে পথের কিনারে ফুটে থাকা লাল-হলুদ ফুলে। বীরগঞ্জ পৌরশহরের বিভিন্ন স্থানের পাশাপাশি উপজেলা চত্বরের পুকুর পাড়ে গাছে-গাছে বর্ণিল সব ফুলের সমারোহ।কোথাও টকটকে লাল কৃষ্ণচূড়া, কোথাও কমলা রঙের রাধাচূড়া। কোথাও আবার ছেয়ে আছে স্নিগ্ধ বেগুনি রঙের জারুল।পথ চলতে থমকে দাঁড়িয়ে এসব ফুলের দিকে কিছুক্ষণ চাননি, এমন মানুষ পাওয়া ভার হবে নিশ্চয়ই। আর মিষ্টি হলুদ রঙের সোনাঝরা সোনালুর ঝলমলে চাহনি গ্রীষ্মের রূপে যোগ করে দ্বিগুণ মাত্রা।এই,ত সেই দিন কিছুক্ষণ দাঁড়িয়ে ছিলাম বীরগঞ্জে সুইচ গেটে কৃষ্ণচূড়া গাছের তলে কি অপরুপ চারদিকে জলাশয়। নদী- খাল বেষ্টত সবুজে ঘেরা অপার সৌন্দযের লীলাভূমির মধ্যে সূযে’র কিরণ মাথায় নিয়ে উঁচু করে দাঁড়িয়ে আছে কৃষ্ণচূড়াগুলো।প্রকৃতি যেন সৌন্দয’ উজাড় করে দিয়েছে তার প্রেমে।প্রাকৃতিক সৌন্দযের ঐতিহ্য গাছটি সেই সৌন্দযকে আরও বাড়িয়ে তুলেছে আকাশছোঁয়া কৃষ্ণচূড়া গাছটি প্রকৃতিক ভালোবাসা আর সৌন্দয উপহার দেয়াই যেন তার কাজ।ভোরের সূযকিরণের সঙ্গে লুকোচুরি খেলে বড় হওয়া সেই কৃষ্ণচূড়া সূযে’র কড়া রোদকে পদদলিত করে প্রআকৃতিপ্রেমীদের জন্য সৃষ্টি করে ছায়ানিবিড় পরিবেশ। তারপরও সবার ক্লান্তি দূর করে হৃদয়কে শীতল করে প্রিয় কৃষ্ণচূড়া। এযেন তার কোনো আবেগ বা ভাব নয়। তার সুবাসই জাগিয়ে তোলে নিদ্রাবৃত প্রকৃতিকে। তাই এমন সৌন্দয’ দেখে বরিশালের প্রেমে পড়েছিলেন প্রকৃতির (কবি জীবনানন্দ দাশ।) কীতনখোলার পারে কবির বসতি আজ ভরে উঠেছে কৃষ্ণচূড়ার সজীবতার আলাপনে। বহুযুগ ধরে তার রুপ রয়েছে অটুট। বিবণ’ পৃথিবীর হৃদয়কে যেন দিয়েছে অনন্য রুপ।

প্রতিদিন বেলা ডুবার সাথে সাথে অসংখ্য নারী-পুরুষ সুইচ গেট সংলগ্ন এলাকায় কৃষ্ণচূড়া গাছের তলায় বসে তার অপরূপ সুন্দর দৃশ্য উপভোগ করেন। কেউ কেউ আবার মোবাইল ফোনে ছবি তুলে ধরেন। ঘুরতে আসা সুবজ বলেন,আপনাদের বলছি আপনারা একটু হলে ও চেষ্টা করুন কৃষ্ণচূড়া গাছের তলায় যাওয়ার একবার যেয়ে দেখুন মনে কন দু:খ -কষ্ট সবই দুর হয়ে যাবে আমরা এই পৃথিবীতে একদিন এসেছি আবার একদিন চলে যেতে হবেই এইটুকু ও মনে রাখি না কারণ সংসার পড়ে থেকে আমাদের সময় গুলো কিভাবে চলে যাচ্ছে। তা আমরা বলতে পারি না বছরের একবার আসেন এই কৃষ্ণচূড়া । আমরা করছি চলার পথে কতযে ভুল, আবার আমার লেখা যদি হয়ে যায় ভুল তবে আমায় করে নিবেন কবুল। এবংভুল গুলোকে সমাধান দিতে একবার দাঁড়ায় গাছের তলায়।

আরও সংবাদ
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।