1. admin@sabujbanglanews.com : সবুজ বাংলা নিউজ : সবুজ বাংলা নিউজ
  2. uttam.birganj14@gmail.com : সবুজ বাংলা নিউজ : সবুজ বাংলা নিউজ
বীরগঞ্জে জমি সংক্রান্ত বিবাদে সন্ত্রাসী হামলায় প্রতিপক্ষের ৪ জন গুরুতর আহত - সবুজ বাংলা নিউজ
মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ০৭:৪১ অপরাহ্ন

বীরগঞ্জে জমি সংক্রান্ত বিবাদে সন্ত্রাসী হামলায় প্রতিপক্ষের ৪ জন গুরুতর আহত

বার্ত ডেক্স
  • প্রকাশের সময় : বৃহস্পতিবার, ২৩ নভেম্বর, ২০২৩

বিকাশ  ঘোষ, বীরগঞ্জ(দিনাজপুর)প্রতিনিধি:

দিনাজপুরের বীরগঞ্জে দুপক্ষের মধ্যে জমি সংক্রান্ত পূর্ব শত্রুতার জের ধরে প্রতিপক্ষের ধারালো অস্ত্রের আঘাতে ৪ জন হয়ে হাসপাতালে ভর্তি।ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার মোহাম্মদপুর ইউনিয়নের চকপাইকপাড়া গ্রামে।আহতরা হলেন- উপজেলার মোহাম্মদপুর ইউনিয়নের চকপাইকপাড়া( মুন্সিপাড়া) গ্রামের মৃত হাফিজ উদ্দিনের পুত্র মোজাহারুল ইসলাম, মৃত তোফার উদ্দিনের ছেলে আনিছুর রহমান, মৃত জরিমদ্দিনের পুত্র হামিদুল হক ও এন্তাজুলের পুত্র শরিফুল ইসলাম।সরজমিনে উপজেলার ৫০ শয্যার স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে গিয়ে জানা যায়, গতকাল (২২ নভেম্বর-২৩) বুধবার বিকেল জমিতে আলু রোপণ করতে গেলে একই এলাকার বাসিন্দা সামসুল হকের পুত্র হেলাল উদ্দিন মুকুল মাষ্টার, জহুরুলের ছেলে আনোয়ার, আবুল কালামের ছেলে আবু বক্করের নেতৃত্বে ওয়ারেসুল, রশিদ, ইকবাল, মাহমুদ, সামসুল হক, লতিফ, আবু তালেব, জহুরুল, আবু কালাম, সোলেমান,রুমি, শামিমা, শিল্পী আকতার, লুৎফা, মাহমুদা, রেশমি ও মনোয়ারা সহ ২৫/৩০ জনের একটি সংঘবদ্ধ দল দেশীয় অস্ত্র শস্ত্রে সজ্জিত হয়ে অতর্কিত হামলা চালায়। এতে জমির মালিক মৃত হাফিজ উদ্দিনের পুত্র মোজাহারুল ইসলাম, মৃত তোফার উদ্দিনের ছেলে আনিছুর রহমান, মৃত জরিমদ্দিনের পুত্র হামিদুল হক ও এন্তাজুলের পুত্র শরিফুল ইসলাম গুরুতর আহত। রক্তাক্ত জখম হয়ে গুরুতর আহতদের স্থানীয় ও স্বজনেরা উদ্ধার করে উপজেলা হাসপাতালে এনে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করে। এঘটনায় কোদালের আঘাতে গুরুতর আহত মোজাহারুল ইসলামের অবস্থা জনক বলে জানিয়েছেন তার পরিবার।প্রকাশ্য দিবালোকে ভূমি জবর দখলের চেষ্টায় লিপ্ত গ্যাং লিডার হেলাল উদ্দিন মুকুল মাষ্টারের পক্ষে তার লোক থানায় এসে আগেই অভিযোগ করার চেষ্টা চলা কালীনভু ক্তভোগী ক্ষতিগ্রস্ত পক্ষ থানায় এসে এজাহার দাখিল করেছে মর্মে জানা গেছে।তবে রাত গভীর হওয়ায় অভিযুক্তদের সাথে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।এব্যপারে, মোহাম্মদপুর ইউপি চেয়ারম্যান গোপাল চন্দ্র দেবশর্মা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান,উভয় পক্ষের মধ্যে ১৪ শতাংশ জমি নিয়ে দীর্ঘদিন থেকে উভয়পক্ষের বিবাদ চলছে আসছে।দাপ্তরিক কাজে বীরগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ মজিবুর রহমান ব্যস্ত থাকা তাকে তার কার্যালয়ে পাওয়া যায়নি।

আরও সংবাদ
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।