1. support@wordpress.org : Support :
  2. prodipit.webs@gmail.com : সবুজ বাংলা নিউজ : সবুজ বাংলা নিউজ
  3. uttam.birganj14@gmail.com : বার্তা বিভাগ : বার্তা বিভাগ
বৃহস্পতিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ০৯:২৬ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
পরীমনির নারাজি জাপানে বুস্টার ডোজ প্রয়োগ শুরু চুয়াডাঙ্গায় হত্যা মামলায় যুবক গ্রেফতার কারাগারে বসে এইচএসসি পরীক্ষা দিলেন আসামি আমিনবাজারে ৬ ছাত্র হত্যা : ১৩ আসামির মৃত্যুদণ্ড করোনা পরিস্থিতি খারাপ হলে আবার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ : শিক্ষামন্ত্রী কাহারোলে গভীর রাতে শীতার্তদের বাড়িতে কম্বল নিয়ে হাজির এমপি গোপাল বীরগঞ্জে অসহায় এক বৃদ্ধ ভিক্ষুককে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করেছেন আলোর পথে সংগঠন বীরগঞ্জে অসহায় এক বৃদ্ধ ভিক্ষুককে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করেছেন আলোর পথে সংগঠন বীরগঞ্জে দুস্থদের মাঝে টিউবওয়েল বিতরণ শেখ হাসিনা সবার জন্য মাথা গোঁজার ঠাই নিশ্চিত করছেন -মনোরঞ্জন শীল গোপাল এমপি বীরগঞ্জের মরিচা ইউনিয়ন আ,লীগের যৌথ বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে ফুলবাড়ীতে নারী নির্যাতন প্রতিরোধে মানববন্ধন ও সাইকেল র‌্যালি এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শুরু দুই যুগেও শান্তি আসেনি পাহাড়ে

কির্তনখোলা-২ লঞ্চের ক্যান্টিনের বাবুর্চিকে কুপিয়ে হত্যা, আটক ২

বার্তা ডেক্স
  • প্রকাশের সময়: শনিবার, ১৯ অক্টোবর, ২০১৯
  • ২২৩ জন দেখেছেন

সংবাদদাতাঃ


ঢাকার কেরানীগঞ্জে বুড়িগঙ্গা নদীর সদরঘাটে এমভি কির্তনখোলা-২ লঞ্চের ক্যান্টিনের বাবুর্চিকে তুচ্ছ ঘটনার জেরধরে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। এই ঘটনায় সন্দেহজনকভাবে ক্যান্টিনের ম্যানেজারসহ দুইজনকে আটক করা হয়েছে। নিহত বাবুর্চির নাম মো. রুবেল হোসেন (২২)। তার বাড়ি পটুয়াখালী জেলায়। আর আটককৃতরা হচ্ছে ক্যান্টিনের ম্যানেজার শহিদুল ইসলাম মিন্টু (৪০) ও রবিউল হাসান (২৪)। এই ঘটনাটি ঘটেছে গতকাল দুপুর ১২টায় সদরঘাট টার্মিনাল এলাকায় এমভি কির্তনখোলা-২ লঞ্চের ক্যান্টিনে। দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানা পুলিশ নিহতের লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করেছে।
দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানার এসআই ইমরান উকিল ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এমভি কির্তনখোলা-২ লঞ্চের ক্যান্টিনে বাবুর্চি রুবেল হোসেনের সঙ্গে একই লঞ্চের স্টাফ মো. ইয়ামিন (২২)এর সঙ্গে তরকারি কাটাকে কেন্দ্র করে কথাকাটাকাটি হয়। কথাকাটাকাটির একপর্যায়ে ইয়ামিনের হাতে থাকা একটি ধারালো বঁটি দিয়ে সে রুবেল হোসেনের গলায় একাধিক কোপ দেয়।
এতে সঙ্গে সঙ্গেই রুবেল হোসেন নিহত হয়। এই ঘটনায় ঘাতক ইয়ামিন দৌড়িয়ে লঞ্চ থেকে দ্রুত পালিয়ে যায়। এ সময় ক্যান্টিনের ম্যানেজারসহ অন্যান্য স্টাফরা ঘটনাটি দাঁড়িয়ে দেখলেও তারা ঘাতক ইয়ামিনকে আটক করেনি। খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে এসে নিহতের লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। এই ঘটনায় সন্দেহজনকভাবে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ক্যান্টিনের ম্যানেজার শহিদুল ইসলাম মিন্টু ও লঞ্চের স্টাফ রবিউল হাসানকে আটক করা হয়েছে। ঘাতক ইয়ামিনের বাবার নাম ইসাহাক সরদার। বাড়ি ঝালকাঠি জেলার নলছিটি থানা

এ বিভাগের আরও সংবাদ:
© All rights reserved © 2019 Sabuj Bangla News
Web Designed By : Sabuj Bangla News Team
x