বীরগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচনের শেষ মুহূর্তে জমে উঠেছে প্রচারণা – সবুজ বাংলা নিউজ
বৃহস্পতিবার ২১ জানুয়ারি ২০২১, পৌষ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ

বীরগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচনের শেষ মুহূর্তে জমে উঠেছে প্রচারণা

 

বিকাশ ঘোষ,বীরগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধি :

দিনাজপুরের বীরগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচন আর মাত্র ৩দিন বাকী। শেষ মুহূর্তে প্রার্থীরা নির্ঘুম প্রচার-প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন। দ্বিতীয় ধাপের নির্বাচনে বীরগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে ৫ জন,সাধারণ কাউন্সিলর পদে ৪১জন এবং সংরক্ষিত আসনে ১৩ জন মহিলা কাউন্সিলর প্রার্থীসহ মোট ৫৯ জন প্রার্থী ভোট যুদ্ধে নেমেছেন। এবার প্রথম ইলেকট্রিক ভোটিং মেশিং (ইভিএম) এর সাহায্যে ভোট গ্রহণ করা হবে। এজন্য ভোটারদের ইভিএম পদ্ধতিতে ভোট প্রদানের নিয়ম কানুন দেখানোর কাজ চলছে। এদিকে নতুন এই পদ্ধতিতে ভোট দেয়ার জন্য ভোটারদের মাঝে উৎসাহ ও কৌতুহল বিরাজ করছে। বীরগঞ্জ উপজেলা নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা যায়,বীরগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচনে ভোটার সংখ্যা ১৫ হাজার ৫৪৫ জন। এর মধ্যে পুরুষ ৭ হাজার ৫১৩ জন ও নারী ভোটার ৮ হাজার ৩২ জন । ৯টি কেন্দ্রের মধ্যে ১নং ওয়ার্ডের বীরগঞ্জ সরকারি কলেজ ১৬২২জন,২নং প্যারাডাইস কিন্ডারগার্টেন এন্ড স্কুল ১৪৪২জন
,৩নং বীরগঞ্জ কেন্দ্রীয় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ১৫৬৬জন,
৪নং বীরগঞ্জ মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ২৭৬২জন,
৫নং বীরগঞ্জ ফাজিল মাদ্রাসা ১৫০৭জন,৬নং মাকড়াই সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ১৫৪৮জন,৭ নং বীরগঞ্জ সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় ২৬০৬জন,৮নং জগদল লুথারেন চার্চ চাইল্ড স্কুল ৯৩৮ জন, ৯ নং জগদল হাটপুকুর আশ্রয়ন প্রকল্প কমিউনিটি সেন্টার ১৫৫৪জন ভোটার। বীরগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচনের প্রচার-প্রচারণায় পোস্টার, ব্যানার, লিফলেটে ছেয়ে গেছে পুরো পৌর এলাকা। গানের ছন্দে প্রার্থীদের মাইকের আওয়াজে মুখরিত করে তুলছে পড়া-মহল্লা। গণসংযোগে রাতদিন ব্যস্ত সময় পার করছেন প্রার্থীরা। যাচ্ছেন ভোটারদের দ্বারে দ্বারে, করছেন ভোট প্রার্থনা এবং দিচ্ছেন নানা প্রতিশ্রুতি। পাশাপাশি চলছে উঠান বৈঠক। নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ছোট ছোট দলে ভাগ হয়ে নিজেদের প্রার্থীর পক্ষে ভোট চাইছেন ভোটারদের কাছে। থেমে নেই নারী কর্মীরা, তারাও দলে দলে ভোট চাইতে যাচ্ছেন এ বাড়ি ও বাড়ি। নির্বাচনের দিন যত ঘনিয়ে আসছে ততই সরগরম হচ্ছে ভোটের মাঠ। প্রতিদিনই ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে হচ্ছে কোন না কোন প্রার্থীর পক্ষ্যে উঠান বৈঠক অথবা নির্বাচনী পথসভা। পাড়া-মহল্লার চায়ের দোকানগুলোতে অনেক রাত পর্যন্ত চলে সাধারণ ভোটারদের পছন্দের প্রার্থীকে ভোট দেওয়ার আলোচনা। চলছে চায়ের কাপে চুমুকের সঙ্গে ছোট ছোট যুক্তিতর্কে ভোটের হিসাব মেলান তারা। আগামী ১৬ জানুয়ারি বীরগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এতে মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন ৫জন প্রার্থী। বর্তমান মেয়র মোবাইল ফোন প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী ও স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে বর্তমান মেয়র মোঃ মোশারফ হোসেন বাবুল, জগ প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন সাবেক মেয়র মাওলানা মোহাম্মদ হানিফ, আওয়ামী লীগের মনোনীত নৌকা প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন মোঃ নুর ইসলাম নুর,বিএনপি মনোনীত ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন আলহাজ্ব মোকাররম হোসেন পলাশ ও হাতপাখা প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের শাহ আলম। বর্তমান মেয়র মোশারফ হোসেন বলেন, আমি উপ-নির্বাচনে ১৭ মাস পৌর মেয়র থাকা অবস্থায় ৬ মাস করোনায় এবং ২ মাস অসুস্থ থাকা সত্বেও উন্নয়নে কোন রকমের কমতি রাখা হয়নি। আমি কোন দল-প্রতীক কিংবা কোন ধর্মের একক মেয়র হতে চাই না । তাই দল মত নির্বিশেষে সকল
জনগনের সমর্থন নিয়ে আবারো মেয়র হয়ে উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে চাই।

  • 8
    Shares

আরও সংবাদ

বীরগঞ্জ থানার এসআই আবু হাসনাত জামান বিভাগীয় শ্রেষ্ট ওয়ারেন্ট তামিলকারী অফিসার নির্বাচিত

  বিকাশ ঘোষ,বীরগঞ্জ(দিনাজপুর) প্রতিনিধি : দিনাজপুরের বীরগঞ্জ থানার এসআই আবু হাসনাত জামান রংপুর বিভাগীয় ওয়ারেন্ট …