বীরগঞ্জে মাদকসেবন ও গণ উপদ্রব্যের অভিযোগে ভ্রাম্যমান আদালতে চাচা-ভাতিজার জেল-জরিমানা বীরগঞ্জে মাদকসেবন ও গণ উপদ্রব্যের অভিযোগে ভ্রাম্যমান আদালতে চাচা-ভাতিজার জেল-জরিমানা – সবুজ বাংলা নিউজ
  1. [email protected] : সবুজ বাংলা নিউজ : সবুজ বাংলা নিউজ
  2. [email protected] : বার্তা বিভাগ : বার্তা বিভাগ
বৃহস্পতিবার, ১৭ জুন ২০২১, ০৩:১৪ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
কুড়িগ্রামে শিশুশ্রম সবচেয়ে বেশি কাহারোল উপজেলার রসুলপুর ইউনিয়ন পরিষদের আয়োজনে মনোরঞ্জন শীল গোপাল এমপি’র রোগমুক্তি কামনায় দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত দিনাজপুর বীরগঞ্জে ৯ নং সাতোর ইউনিয়নের দলুয়া উচ্চ বিদ্যালয় ও মহাবিদ্যালয় আয়োজনে মনোরঞ্জন শীল গোপাল এমপির রোগমুক্তি কামনায় দোয়া অনুষ্ঠিত বীরগঞ্জে আর্দশ কৃষকদের মাঝে প্রশিক্ষণের শুভ উদ্বোধন সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত এক নারীর কাহারোলে মনোরঞ্জন শীল গোপাল এমপি’র রোগমুক্তি কামনায় দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত বীরগঞ্জ উপজেলা রিক্সা ও ভ্যান শ্রমিক ইউনিয়নের আয়োজনে মনোরঞ্জন শীল গোপাল এমপি’র রোগমুক্তি কামনায় দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত কুড়িগ্রামে ‘জাম্ক ফুড, পথ ও খোলা খাবার না খেলে অনেক রোগ থেকে মুক্তি মিলে’ বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত কুড়িগ্রামে ৩টি ওয়ার্ডে চলাচলে বিধি নিষেধ আরোপ বীরগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের আয়োজনে এমপি গোপাল এর রোগমুক্তি কামনায় দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত

বীরগঞ্জে মাদকসেবন ও গণ উপদ্রব্যের অভিযোগে ভ্রাম্যমান আদালতে চাচা-ভাতিজার জেল-জরিমানা

বার্তা ডেক্স
  • প্রকাশের সময়: মঙ্গলবার, ২৬ নভেম্বর, ২০১৯
  • ৫০ জন দেখেছেন

বিকাশ ঘোষ॥ দিনাজপুরের বীরগঞ্জ পৌরশহরের মাদকসেবন করে এলাকার মানুষদের গণ উপদ্রব্য করার অভিযোগে চাচা-ভাতিজাকে ভ্রাম্যমান আদালত গঠন করে জেল ও জরিমানা করা হয়েছে। পৌরসভার ৪নং ওয়ার্ডের দাসপাড়া গ্রামে মৃত বিজয় চন্দ্র দাসের ছেলে রবি চন্দ্র দাস (৫০)-চাচা ও ভাতিজা মৃত গোবিন্দ চন্দ্র দাসের ছেলে অর্জুন চন্দ্র দাস (২৫) দীর্ঘ দিন থেকে মদ্যপান করে উক্ত এলাকায় গণউপদ্রব্য করে আসছিলেন। সোমবার বিকালে স্থানীয় লোকজন ৯৯৯ মুঠোফোনে যোগাযোগ করে বীরগঞ্জ থানায় সংবাদ দিলে বীরগঞ্জ থানার পরিদর্শক মোঃ আব্দুল হালিম এর নেতৃত্বে কনষ্টেবল সিরাজুল ইসলাম ও শাহাজাদা সঙ্গীয় ফোর্স গিয়ে তাদের গ্রেফতার করে। বীরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মোঃ ইয়ামিন হোসেন ভ্রাম্যমান আদালত গঠন করে মাদকসেবী রবি চন্দ্র দাসকে জিজ্ঞাসাবাদ করেন এলাকায় গণউপদ্রব্য করার কারণ জানতে চাইলে তিনি বলেন, তার মনে অনেক দুঃখ তাই সে তার দুঃখ ঘুছানোর জন্য মদ্যপান করে এলাকায় গণউপদ্রব্য করেন। অন্যদিকে ভাতিজা অর্জুন দাস বলেন, বীরগঞ্জ উপজেলার স্লুইচগেট এলাকার আদিবাসী পাড়া গিয়ে বন্ধুদের নিয়ে মদ্যপান করে এলাকায় গণউপদ্রব্য করেন। উক্ত স্বীকারোক্তীতে, চাচা রবি চন্দ্র দাসকে মাদক আইনে ৩৬ (২) ও (২৫) ধারায় ০৬ মাসের জেল ও ভাতিজা অজুর্ন দাস কে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা করে। এব্যাপারে বীরগঞ্জ থানার ওসি তদন্ত নবী হুসাইন খান জানান, মাদকের বিরুদ্ধে আমরা সোচ্চার রয়েছি। মাদক সেবনকারী ও মাদক বিক্রেতাদের কোন ছাড় দেওয়া হবে না।

  • 238
    Shares
এ বিভাগের আরও সংবাদ:
© All rights reserved © 2019 Sabuj Bangla News
Web Designed By : Prodip Roy