প্রধান শিক্ষকের প্রহারে ছাত্র হাসপাতালে, অতঃপর….. প্রধান শিক্ষকের প্রহারে ছাত্র হাসপাতালে, অতঃপর….. – সবুজ বাংলা নিউজ
  1. [email protected] : সবুজ বাংলা নিউজ : সবুজ বাংলা নিউজ
  2. [email protected] : বার্তা বিভাগ : বার্তা বিভাগ
রবিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২১, ১২:২৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
সাপাহারে মানা হচ্ছেনা লকডাউন বীরগঞ্জে রাবিস বালু দিয়ে চলছে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নিমার্ণ কাজ।এলাকাবাসীদের মানববন্ধন ঠাকুরগাঁওয়ে হারিয়ে যাচ্ছে কঁচু শাখ, নেই কোন কঁচু শাখের কদর চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা যুবদলের তারিফ বেগম খালেদা জিয়ার সুস্থতা কামনা করেছেন ফুলবাড়ীয়ার লেবু যাচ্ছে বিদেশে, বাড়ছে লেবু চাষের আগ্রহ নীলফামারীর ডিমলায় তিস্তার চরে ভুট্টার বাম্পার ফলন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মানুষকে আশান্বিত করেছেন’ -মনোরঞ্জন শীল গোপাল এমপি বীরগঞ্জ পৌরসভায় পবিত্র মাহে রমজান উপলক্ষে টিসিবি’র কার্যক্রম উদ্বোধন সাপাহারে ভ্রাম্যমান আদালতে দু’টি ইটভাটার অর্থদন্ড সাপাহারে কোভিড আক্রান্ত রোগীদের খোঁজ নিলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ আল মামুন

প্রধান শিক্ষকের প্রহারে ছাত্র হাসপাতালে, অতঃপর…..

প্রতিনিধি
  • প্রকাশের সময়: বৃহস্পতিবার, ৭ নভেম্বর, ২০১৯
  • ৩৭ জন দেখেছেন


একরামুল, পীরগাছা (রংপুর) প্রতিনিধি:
রংপুরের পীরগাছা উপজেলায় একটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের মাত্রারিক্ত মারপিটে ৪র্থ শ্রেণির শিক্ষার্থী শাওন মিয়া গুরুতর আহত হয়েছে। গত শনিবার উপজেলার নাছুমামুদ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এ ঘটনাটি ঘটে। পরে পীরগাছা থানা পুলিশ আহতাবস্থায় শিশুটিকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করেন। সে পাশর্^বর্তী মিঠাপুকুর উপজেলার ঠাকুরবাড়ী গ্রামের হযরত আলীর ছেলে। শাওন ওই স্কুলের আবাসিকের ছাত্র। স্থানীয় প্রত্যক্ষদর্শি ও বিদ্যালয় সূত্রে জানা যায়, ক্লাসে বেে বসা নিয়ে তার এক সহপাঠির সাথে ঝগড়া হয় শাওনের। স্কুলের প্রধান শিক্ষক শাহিনুর ইসলাম বিষয়টি জানতে পেরে শাওনকে ডেকে নিয়ে বেধড়ক মারধর করেন। এসময় শাওন দৌঁড়ে পালানোর চেষ্টা করলে আবারো তাকে ধরে মারধর করা হয়। এতে সে অসুস্থ হয়ে মেঝেতে লুটিয়ে পড়ে। এসময় প্রধান শিক্ষক তাকে হাসপাতালে না নিয়ে স্কুলেই প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়ার চেষ্টা করেন। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের দায়িত্বরত চিকিৎসক ডাক্তার জুয়েল তরফদার জানান, পিটুনি দেওয়ার কারণে শাওনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বর্তমানে তাকে পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে। প্রধান শিক্ষক বলেন, দুষ্টমি করার কারণে তাকে শাসানো হলে সে মাটি পড়ে আহত হয়।
অতঃপর সেই শিক্ষার্থীকে ভয়ভীতি দেখিয়ে গভীর রাতে হাসপাতাল থেকে তাড়িয়ে দিয়েছেন প্রধান শিক্ষক ও সভাপতির লোকজন। ফলে আহত শিক্ষার্থীকে নিয়ে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে শিশু বিভাগে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় সোস্যাল মিডিয়াসহ গোটা উপজেলায় চলছে সমালোচনার ঝড়।
বিষয়টি সাংবাদিকদের নজরে আসলে ওইদিন গভীর রাতে প্রধান শিক্ষক শাহিনুর ইসলাম ও বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি নুরুল আমিন বুলেটের লোকজন শিক্ষার্থীর পিতা হযরত আলী ও তার ছেলে শাওনকে ভয়ভীতি দেখান এবং রাতের মধ্যে হাসপাতাল ছেড়ে না গেলে বড় ধরণের ক্ষতি করার হুমকি দেন। ফলে তাদের চাপের মুখে গভীর রাতে শিক্ষার্থী শাওনকে নিয়ে তার পিতা গোপনে হাসপাতাল ছেড়ে চলে যায়। পরে খোঁজ নিয়ে জানা যায়, ওই শিক্ষার্থীকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে শিশু বিভাগে ভর্তি করা হয়েছে। শিক্ষার্থীর বাবা হযরত আলী বলেন, অনেক লোকজন নিয়ে আমাকে ভয়ভীতি দেখানো হয়েছে। তাই আমি বাধ্য হয়ে সন্তানকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেছি। আমরা গরীব মানুষ। বিচার পাবো কোথায়?
অভিযুক্ত প্রধান শিক্ষক বলেন, ওই শিক্ষার্থীর জন্য সব ধরণের চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়েছে। তাই তারা চলে গেছে। কোনো ভয়ভীতি দেখানো হয়নি। এ ব্যাপারে বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি নুরুল আমিন বুলেট বলেন, আমাদের লোকজন ওই শিক্ষার্থীর সাথে আছে। তাকে তাড়ানো হয়নি।
এ বিষয়ে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার রফিক-উজ-জামান বলেন, সহকারী শিক্ষা অফিসার আফজাল হোসেনকে বিষয়টি তদন্ত করার জন্য দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।

  • 5
    Shares
এ বিভাগের আরও সংবাদ:
© All rights reserved © 2019 Sabuj Bangla News
Web Designed By : Prodip Roy