বীরগঞ্জে ৭ হাজার হিন্দু পরিবারের শশ্মানঘাট ভূমিদস্যু বিল্লুর দখলে বীরগঞ্জে ৭ হাজার হিন্দু পরিবারের শশ্মানঘাট ভূমিদস্যু বিল্লুর দখলে – সবুজ বাংলা নিউজ
  1. [email protected] : সবুজ বাংলা নিউজ : সবুজ বাংলা নিউজ
  2. [email protected] : বার্তা বিভাগ : বার্তা বিভাগ
বৃহস্পতিবার, ০৫ অগাস্ট ২০২১, ০৯:৪২ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
বিরামপুর পৌরসভার পক্ষথেকে প্রধানমন্ত্রীর উপহার খাদ্য সামগ্রী পেলেন -৬০০ পরিবার শেখ কামাল তাঁর কর্মময় জীবন বাংলাদেশের তরুণদের জন্য উৎসর্গ করে গিয়েছেন -মনোরঞ্জন শীল গোপাল এমপি শেখ কামাল তারুন্যের প্রেরণা ও দৃষ্টান্ত -মনোরঞ্জন শীল গোপাল এমপি কুড়িগ্রামে পাউবো প্রকৌশলীর বদলির দাবিতে তিস্তার ভাঙ্গনে নিঃস্ব গ্রামবাসীর মানববন্ধন রংপুর বিভাগের তিন জেলায় করোনা বিষয়ে সচেতনতামূলক সাংবাদিকদের অনলাইনে প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হাতিবান্ধায় বীর মুক্তিযোদ্ধা শহিদ ক্যাপ্টেন শেখ কামালের জন্মবার্ষিকী পালন মাদ্রাজি ওল চাষে স্বপ্ন দেখছে বীরগঞ্জের কৃষক প্রেম হরি বিরামপুরে অসহায় দুস্থ পরিবারের মাঝে নগদ অর্থ বিতরণ পোড়ামাটি স্থাপত্যের শ্রেষ্ঠ নিদর্শন কান্তজিউ মন্দির বীরগঞ্জে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন মামলায় গ্রেফতার -১ কাহারোলে বাংলাদেশ প্রেস ক্লাব কাহারোল উপজেলা শাখার আহবায়ক কমিটি গঠন বীরগঞ্জ উপজেলা করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ কমিটির সভা নিখোঁজের ৩ বছর পর ভারতীয় এক যুবককে উদ্ধার করলো সিআইডি নিখোঁজের ৩ বছর পর ভারতীয় এক যুবককে উদ্ধার করলো সিআইডি বাংলাদেশ প্রেস ক্লাব কাহারোল উপজেলা শাখার আহবায়ক কমিটি গঠন

বীরগঞ্জে ৭ হাজার হিন্দু পরিবারের শশ্মানঘাট ভূমিদস্যু বিল্লুর দখলে

বার্তা ডেক্স
  • প্রকাশের সময়: সোমবার, ৭ অক্টোবর, ২০১৯
  • ৯১ জন দেখেছেন

স্টাফ রিপোর্টারঃ দিনাজপুরের বীরগঞ্জ ভূমি অফিস সূত্রে জানা গেছে, বীরগঞ্জ উপজেলার পলাশবাড়ী ইউনিয়নের ব্রাহ্মণভিটা, নন্দাইগাঁও ও মদাতী গ্রামের হিন্দু পরিবারের পার্শ্ববর্তী হাড়িপুকুর শশ্মানঘাটে দীর্ঘ ৪০ বছর ধরে সমাধি করে আসছিল । কিন্তু একই এলাকার মৃত ডা. কাশেম আলীর ছেলে আলহাজ্ব কাউসার আলী বিল্লু হিন্দু পরিবারের লোকজন কে ভয়ভীতি দেখিয়ে জবর দখল করে উক্ত শশ্মানঘাটে মাছ চাষ করছেন।

এ ব্যাপারে গ্রামের ধনঞ্জয় বর্মন শত শত মানুষের সাক্ষর নিয়ে বীরগঞ্জ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) অফিসে অভিযোগ দায়ের করেন।
সোমবার সরেজমিনে গেলে সাংবাদিকদের চিলা বর্মনের ছেলে ধোলা বর্মন বলেন, ২০০৭ সালে আমার মায়ের সৎ কার্য করার জন্য উক্ত শ্মশান ঘাটে গেলে ভূমিদস্যু কাওসার আলী বিল্লু বাঁধা প্রদান করে জমি জবর দখল করে পুকুর খনন পূর্বক মাছ চাষ করছেন। বিলন্দ বর্মন,শ্রী হরে বর্মন,রতন, সুজন রায়,পলাশ একই অভিযোগ করেন।

পলাশবাড়ী ইউনিয়ন বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগের আহ্বয়ক গৌতম চন্দ্র রায় জানান, উক্ত শশ্মান ঘাটের জমিতে ভূমি দস্যু বিল্লু রাতের আধারে দল বল নিয়ে দখল করে মৎস্য চাষ করে আসছেন। এতে করে এলাকার ৭ হাজার হিন্দু সম্প্রদায়ের লেক জন নিরুপায় হয়ে পড়েছেন। তারা বর্ষা মৌসুমে নদী ভরাট হলে সমাধি কার্য করতে চরম সমাস্যার সম্মুখীন হচ্ছেন।

এ ব্যাপারে ডা. আলহাজ্ব কাউসার আলী বিল্লুর সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, আমার মরহুম পিতা ১৯৬৭ সালে জমিদারের কাছে কবলা মূল্যে সূত্রে ক্রয় করেন। কিন্তু হিন্দু সম্প্রাদায়ের শশ্মানঘাট না থাকায় আমাদের জমিতে সমাধি করতেন। আমার পিতার পৈতৃক সম্পত্তি হিসাবে আমি দাবি করতেই পারি।

এবিষয়ে সহকারী কমিশনার (ভূমি) অফিসার কর্মকর্তা জাবের মোঃ সোয়াইব বলেন, একটি জমির বৈধ কাগজ লাগে আর এজন্য আমরা সঠিক ভাবে তদন্ত চলমান আছে।

এ বিভাগের আরও সংবাদ:
© All rights reserved © 2019 Sabuj Bangla News
Web Designed By : Prodip Roy